শিরোনাম
◈ ক্ষমতার পতন ও অপেক্ষার মিষ্টি ফল-মহসীন ভূঁইয়া ◈ নাঙ্গলকোটে দুই গ্রামের মানুষের চলাচলের প্রধান রাস্তাকে খাল বানিয়ে নিরুদ্দেশ ঠিকাদার! ◈ নাঙ্গলকোটের তিনটি প্রতিষ্ঠান পরিদর্শনে শিক্ষা মন্ত্রনালয়ের টিম ◈ নাঙ্গলকোটে শত বছরের পানি চলাচলের ড্রেন বন্ধ ,বাড়িঘর ভেঙ্গে ২’শ গাছ নষ্টের আশংকা ◈ পদ্মা সেতুর রেল সংযোগে খরচ বাড়লো ৪ হাজার কোটি টাকা ◈ অরুণাচল সীমান্তে বিশাল স্বর্ণখনির সন্ধান! চীন-ভারত সংঘাতের আশঙ্কা ◈ কুমিল্লার বিশ্বরোডে হচ্ছে দৃষ্টিনন্দন ইউলুপ- লোটাস কামাল ◈ দুই মামলায়খালেদার জামিন আবেদনের শুনানি আজ ◈ মাদকবিরোধী অভিযানএক রাতে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ১১ ◈ নাঙ্গলকোটে চলবে ৩ দিন ব্যাপী মাটি পরীক্ষা

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসে ছাত্রলীগের হামলায় আহত ১২

১৪ মে ২০১৮, ১২:০৬:৫৯

স্টাফ রির্পোটার•
কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের (কুবি) শিক্ষার্থী বহনকারী বাস, স্টাফ বাসসহ বেশ কয়েকটি বাসে সন্ত্রাসী হামলা চালিয়েছে কুমিল্লা সরকারি কলেজ শাখা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। রোববার (১৩ মে) বিকাল ৫টার দিকে বাসবহর শহরের পুলিশ লাইন এলাকায় পৌঁছালে এ হামলার ঘটনা ঘটে।

এসময় আহত হয় কমপক্ষে ১০-১২ জন। এছাড়াও ঘটনাস্থল থেকে ৪-৫ জন শিক্ষার্থীকে আটক করে কোতোয়ালী মডেল থানা পুলিশ।
প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, রবিবার সকালে কোটা সংস্কার আন্দোলনের অংশ হিসেবে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয় নগরীর কান্দিরপাড়ে। ওই সময় সরকারি কলেজের কয়েকজন ছাত্রলীগ কর্মীর সাথে মানববন্ধনে অংশ নেয়া কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের কয়েকজন শিক্ষার্থীর কথা কাটাকাটি হয়।

এ ঘটনার জের ধরেই বিকেল ৫টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বাসগুলো শহরে পুলিশ লাইন এলাকায় পৌঁছালে নিকটস্থ সরকারি কলেজ শাখা ছাত্রলীগের প্রায় অর্ধশতাধিক নেতাকর্মী রড-লাঠি-রামদা নিয়ে কুবি শিক্ষার্থীদের বহনকারী বাসের ওপর হামলা চালায়।

শিক্ষার্থীরা দৌড়ে এদিক-সেদিক ছত্রভঙ্গ হয়ে যায়। এ ঘটনায় আহত হয় কমপক্ষে ৮-১০ জন শিক্ষার্থী। তাদেরকে ঘটনাস্থল সংলগ্ন মুন হাসপাতালসহ কয়েকটি ক্লিনিকে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।
ঘটনাস্থলে থাকা ফিন্যান্স বিভাগের শিক্ষার্থী রায়হানুল ইসলাম জানান, ‘কিছু বুঝে ওঠার আগেই আমাদের বাসে সরকারি কলেজ ছাত্রলীগের ছেলেরা হামলা করে। এসময় পুলিশ এসে হামলাকারীদের পক্ষ নিয়ে বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের লাঠিপেটা করে এবং টিয়ারশেল ছুড়তে থাকে। ঘটনাস্থল থেকে বেশ কয়েকজনকে পুলিশ ধরেও নিয়ে গেছে দেখেছি।’

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর ড. কাজী মোহাম্মদ কামাল উদ্দিন জানান, আমরা বিষয়টি নিয়ে পুলিশ প্রশাসনের সাথে যোগাযোগ করেছি। পরিস্থিতি এখন শান্ত আছে। আমাদের কোনো শিক্ষার্থী আটক থাকলে আমরা প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিবো। এ ব্যাপারে মামলা করার বিষয়েও কথা চলছে।

Amader Nangalkot'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।  আমাদের নাঙ্গলকোট পত্রিকা তথ্য মন্ত্রনালয়ের তালিকাভক্তি নং- ১০৫।

পাঠকের মন্তব্য: