খুলনায় আ’লীগ নেতার ভাইকে গলাকেটে হত্যা | আমাদের নাঙ্গলকোট
সর্বশেষ সংবাদ
◈ বঙ্গবন্ধুর মানবিক গুনাবলী ও ধর্মীয় চেনতা-মোহাম্মদ হেদায়েত উল্লাহ ◈ সুপ্রিম কোর্টের অবকাশকালীন সব ছুটি বাতিল! ◈ সংবিধান থেকে রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম বাদ দেয়া সেই লিগ্যাল নোটিশ প্রত্যাহার ◈ বিশ্ব পর্যটন দিবস ও আমাদের সম্ভাবনা ◈ মোল্লা নিয়ে আলোচনা -সমালোচনা- এ,কে,এম মনিরুল হক ◈ বাইয়ারা প্রবাসী কল্যাণ ইউনিট’র বাহারাইন শাখা কমিটি গঠন ◈ পাই যে কৃপার ভাগ – মোঃ জহিরুল ইসলাম। ◈ কুমিল্লায় শিশু ধর্ষণের অভিযোগে জুতা পেটা খাওয়া ছাত্রলীগ নেতাকে দল থেকে বহিষ্কার ◈ সামাজিক সংগঠন ”খাজুরিয়া সমাজ কল্যাণ সংস্থার” ১৫ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন ◈ দৌলখাঁড় উচ্চ বিদ্যালয়ের নতুন প্রধান শিক্ষক শাহ আলম মজুমদার ◈ শিক্ষকদের মূল্যায়ন কতক্ষণ করবে- জহিরুল ইসলাম ◈ শুধু ভুলে যাই- গাজী ফরহাদ
প্রচ্ছদ / সারাদেশ / বিস্তারিত

খুলনায় আ’লীগ নেতার ভাইকে গলাকেটে হত্যা

27 February 2017, 8:36:28

খুলনা সোমবার (২৭ ফেব্রুয়ারি) সকাল ৯টায় মহানগরীর আড়ংঘাটা থানার বিল পাবলা এলাকার একটি মাছের ঘের থেকে আওয়ামী লীগ নেতা শহীদুল ইসলাম বন্দের ছোটভাই মহিদুল ইসলাম বন্দকে (৪৫) তার মরদেহ উদ্ধার করা হয়। 

নিহত মহিদুল মহানগরীর দেয়ানা এলাকার মৃত মোক্তার হোসেন বন্দের ছেলে ও দৌলতপুর থানা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক শহীদুলের ছোট ভাই।

পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রোববার সন্ধ্যা ৭টার দিকে মহিদুল নগরীর আড়ংঘাটা থানা এলাকার বিল পাবলায় তার মাছের ঘেরে যান। রাতে তিনি আর বাড়ি ফেরেননি। সোমবার এলাকাবাসী মহিদুলের পার্শ্ববর্তী আরেকটি ঘেরের পাড়ে তার গলাকাটা মরদেহ পড়ে থাকতে দেখেন। খবর পেয়ে দৌলতপুর থানা পুলিশ মহিদুলের মরদেহ উদ্ধার করে। 

দৌলতপুর থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) রুহুল আমিন জানান, মহিদুলের গলা, মুখ ও শরীরের বিভিন্ন স্থানে ধারালো অস্ত্রের আঘাত রয়েছে। কি কারণে, কারা তাকে হত্যা করেছে প্রাথমিকভাবে তা জানা যায়নি।  

আড়ংঘাটা থানা পুলিশকে খবর দেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি। থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নাসিম খান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, পাবলা থেকে একটি মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। 

Amader Nangalkot'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।  আমাদের নাঙ্গলকোট পত্রিকা তথ্য মন্ত্রনালয়ের তালিকাভক্তি নং- ১০৫।

পাঠকের মন্তব্য: