টুর্নামেন্ট শেষ করলো কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স টানা চার জয় নিয়ে | আমাদের নাঙ্গলকোট
সর্বশেষ সংবাদ
◈ বঙ্গবন্ধুর মানবিক গুনাবলী ও ধর্মীয় চেনতা-মোহাম্মদ হেদায়েত উল্লাহ ◈ সুপ্রিম কোর্টের অবকাশকালীন সব ছুটি বাতিল! ◈ সংবিধান থেকে রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম বাদ দেয়া সেই লিগ্যাল নোটিশ প্রত্যাহার ◈ বিশ্ব পর্যটন দিবস ও আমাদের সম্ভাবনা ◈ মোল্লা নিয়ে আলোচনা -সমালোচনা- এ,কে,এম মনিরুল হক ◈ বাইয়ারা প্রবাসী কল্যাণ ইউনিট’র বাহারাইন শাখা কমিটি গঠন ◈ পাই যে কৃপার ভাগ – মোঃ জহিরুল ইসলাম। ◈ কুমিল্লায় শিশু ধর্ষণের অভিযোগে জুতা পেটা খাওয়া ছাত্রলীগ নেতাকে দল থেকে বহিষ্কার ◈ সামাজিক সংগঠন ”খাজুরিয়া সমাজ কল্যাণ সংস্থার” ১৫ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন ◈ দৌলখাঁড় উচ্চ বিদ্যালয়ের নতুন প্রধান শিক্ষক শাহ আলম মজুমদার ◈ শিক্ষকদের মূল্যায়ন কতক্ষণ করবে- জহিরুল ইসলাম ◈ শুধু ভুলে যাই- গাজী ফরহাদ
প্রচ্ছদ / খেলাধুলা / বিস্তারিত

টুর্নামেন্ট শেষ করলো কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স টানা চার জয় নিয়ে

4 December 2016, 6:35:36

বিপিএলের চতুর্থ আসরের ৪১ তম ম্যাচে রংপুর রাইডার্সকে ৮ রানে হারিয়েছে তৃতীয় আসরের চ্যাম্পিয়ন দল কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। রংপুরের জন্য মহা গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে জয়ের জন্য ১৭১ রানের টার্গেট দিয়েছিলো কুমিল্লা কিন্তু নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেটে ১৬২ রান করে রংপুর।

মিরপুর শের-ই-বাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টসে জিতে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেন রংপুরের অধিনায়ক নাইম ইসলাম। তবে নাইমের সিদ্ধান্তকে ভুল প্রমাণিত করেন কুমিল্লার দুই ওপেনার ইমরুল কায়েস ও খালিদ লতিফ। ওপেনিং জুটিতে এই দুই ব্যাটসম্যান মিলে তুলেন ৮৮ রান।  ৩৫ বলে ৫২ রান করা ইমরুলকে আউট করে জুটি ভাঙ্গেন আরাফাত সানি। এরপর ফর্মে থাকা মারলন স্যামুয়েলস লতিফের সাথে যোগ দেন। তবে দলীয় ১০৭ রানের মাথায় ৩৬ বলে ৪৩ রান করে বিদায় নেন খালিদ লতিফ। চার নাম্বারে উঠে এসে সুবিধা করতে পারেন নি কুমিল্লার অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা। ৭ বলে ৭ রান করেন মাশরাফি। তার আউট হবার পর ২৪ বলে ৩০ রান করে রান আউটের ফাঁদে পড়েন মারলন স্যামুয়েলস। শেষে দিকে আশার জাইদির ১১ বলে ১৭ ও রশিদ খানের ৪ বলে ১১ রানের ইনিংসে নির্ধারিত ২০ ওভারে ১৭০ রানের লড়াই করার স্কোর পায় কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স। রংপুরের পক্ষে আরাফাত সানি ও রুবেল হোসেন ২ টি করে উইকেট নেন।

জিতলে শেষ চারের জায়গা পাকা আর হারলে অপেক্ষা করতে হবে ঢাকা ডায়নামাইটস এবং খুলনা টাইটান্সের মধ্যে শেষ ম্যাচের ফলাফলের উপর। এমন সমীকরণে অফ ফর্মে থাকা সৌম্য সরকারকে নিয়ে ৪৮ রানের জুটি করে ভালো সূচনা করেন শাহজাদ। কিন্তু ১২ বলে মাত্র ৫ রান করে সৌম্যের বিদায়ের সাথে সাথে রংপুরের ইনিংসে ছোট-খাট একটা ধস নামে। ৯ রানে ৪ উইকেট হারায় দলটি। এরপর অধিনায়ক নাইম ইসলাম ও শহিদ আফ্রিদি মিলে ৪২ রানের জুটি করে সেই ধাক্কা সামাল দেন। ১৩ বলে ১২ রান করে দলীয় ৯৯ রানে আউট হোন নাইম ইসলাম। আফ্রিদিও নাইমের বিদায়ের পর স্থায়ী হতে পারেন নি। ১৯ বলে ৩ চার আর ২ ছক্কায় করেছেন ৩৮ রান। তবে শেষের দিকে জিয়াউর রহমানের ২২ বলে অপরাজিত ৩৮ রানে জয়ের কাছাকাছিও শেষ পর্যন্ত আর পারে নি রংপুর। হারতে হয়েছে ৮ রানে। কুমিল্লার পক্ষে ৪ ওভারে মাত্র ১৩ রানে ৩ উইকেট নিয়েছেন রশিদ খান। এছাড়া অধিনায়ক মাশরাফি নেন ২ উইকেট।

এই জয়ের মাধ্যমে আগেই টুর্নামেন্ট থেকে বিদায় নেয়া কুমিল্লা জিতলো টানা ৪ ম্যাচ। প্রথম ৮ ম্যাচে ১ জয় পাওয়া দলটি শেষ পর্যন্ত ১০ পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের ৬ নাম্বারে থেকে টুর্নামেন্ট শেষ করলো। অন্যদিকে ১২ ম্যাচে এটা রংপুরের ৬ নাম্বার পরাজয়। তবে ১২ পয়েন্ট নিয়ে এখনো আশা বাঁচিয়ে রেখেছে রংপুর। অপেক্ষা করতে হবে প্রথম পর্বের শেষ ম্যাচের ফলাফলের উপর।

সংক্ষিপ্ত স্কোরঃ 

কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সঃ ১৭০/৬ (২০ ওভার)
ইমরুল কায়েস ৫২, খালিদ লতিফ ৪৩, স্যামুয়েলস ৩০; আরাফাত সানি ২/২৯, রুবেল হোসেন ২/৩০

রংপুর রাইডার্সঃ ১৬২/৮ (২০ ওভার)
মোহাম্মদ শাহজাদ ৪৫, শহিদ আফ্রিদি ৩৮, জিয়াউর রহমান ৩৮, রশিদ খান ৩/১৩, মাশরাফি ২/২৭, নাবিল সামাদ ২/২৭

ফলাফলঃ কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স ৮ রানে জয়ী।
ম্যাচের সেরা খেলোয়াড়ঃ রশিদ খান ( কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স)

Amader Nangalkot'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।  আমাদের নাঙ্গলকোট পত্রিকা তথ্য মন্ত্রনালয়ের তালিকাভক্তি নং- ১০৫।

পাঠকের মন্তব্য: