নাঙ্গলকোটে মূল ঘটনাকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করতে গরুর বেপারীর ষড়যন্ত্র! | আমাদের নাঙ্গলকোট
সর্বশেষ সংবাদ
◈ বঙ্গবন্ধুর মানবিক গুনাবলী ও ধর্মীয় চেনতা-মোহাম্মদ হেদায়েত উল্লাহ ◈ সুপ্রিম কোর্টের অবকাশকালীন সব ছুটি বাতিল! ◈ সংবিধান থেকে রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম বাদ দেয়া সেই লিগ্যাল নোটিশ প্রত্যাহার ◈ বিশ্ব পর্যটন দিবস ও আমাদের সম্ভাবনা ◈ মোল্লা নিয়ে আলোচনা -সমালোচনা- এ,কে,এম মনিরুল হক ◈ বাইয়ারা প্রবাসী কল্যাণ ইউনিট’র বাহারাইন শাখা কমিটি গঠন ◈ পাই যে কৃপার ভাগ – মোঃ জহিরুল ইসলাম। ◈ কুমিল্লায় শিশু ধর্ষণের অভিযোগে জুতা পেটা খাওয়া ছাত্রলীগ নেতাকে দল থেকে বহিষ্কার ◈ সামাজিক সংগঠন ”খাজুরিয়া সমাজ কল্যাণ সংস্থার” ১৫ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন ◈ দৌলখাঁড় উচ্চ বিদ্যালয়ের নতুন প্রধান শিক্ষক শাহ আলম মজুমদার ◈ শিক্ষকদের মূল্যায়ন কতক্ষণ করবে- জহিরুল ইসলাম ◈ শুধু ভুলে যাই- গাজী ফরহাদ

নাঙ্গলকোটে মূল ঘটনাকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করতে গরুর বেপারীর ষড়যন্ত্র!

23 June 2017, 7:14:22

 

স্টাফ রির্পোটার:

কুমিল্লার নাঙ্গলকোট উপজেলার রায়কোট উত্তর ইউনিয়নের মাহিনী বাজারে গরু বাজারে গরুর হাসিল কে কেন্দ্র করে কথাকাটাকাটিকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করতে গরুর দালাল ষড়যন্ত্র করছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। জানা গেছে, ২২ জুন বৃহস্পতিবার বিকাল ৪ টায় মাহিনী বাজারে  গরু আনে গরুর দালাল গান্ধাছি গ্রামের মৃত আবদুল মালেকের ছেলে মোহাম্মদ উল্যাহ। সে হাসিল দিতে এসে নির্ধারিত হাসিল হাজারে ৩০ টাকা করে ৭৩ হাজার দামের গরুর প্রায় ১০০০ টাকার মধ্যে সে মাত্র ৩০০ টাকা দিয়ে মাথা ত্যাড়া করে চলে যাচ্ছিল। হাসিল কমিটি তাকে ডাক দিলে সে উত্তেজিত হয়ে গালাগালি শুরু করে। এসময় পাশে দাড়িয়ে থাকা কয়েকজন মানুষ রোজার দিন গালি দিতে নেই বললে সে আরো উত্তেজিত হয়ে পড়ে। এসময় সে বলে আমি আজ দীর্ঘদিন গরুর দালালী করি,সেই হিসেবে আমি তো হাসিল না দিলেই চলে! এই বলে সে হাসিলের বইটি ছুড়ে ফেলে দেয়। গরুর দালালের এমন কান্ডে বাজারের ব্যবসায়ীসহ স্থানীয়রা অবাক ও বিস্ময় হয়ে যায়। ঘটনার কয়েকঘন্টা পর থেকে সে মুখে মুখে প্রচার করতে থাকে তাকে নাকি বাজারের গরুর হাসিল কমিটি মারধোর করেছে। এ বিষয়ে জানতে চাইলে বাজারের গরু বাজারের হাসিল কমিটির পরিচালক মাসুদ মিয়াজী বলেন- ঘটনাটি আ্সলে ভুল বুঝাবুঝি। তবে অন্যদিকে  প্রশাসন সত্যতা যাচাই করে উপযুক্ত পদক্ষেপ নিবে বলে আশা করছি। গরুর দালাল মোহাম্মদ উল্লাহ কে বারবার কল করলে তার বাড়ির কোন এক মহিলা রিসিভ করে বলেন-তিনি তো গরু নিয়ে বাজারে চলে গেছেন। বাজারের ব্যবসায়ী ও বাজারের ইজারাদার জাফর মজুমদার বলেন-মাসুদ মিয়াজী তো গরু বাজারে তেমন একটা আসেন না, আজ যাও আসলেন,গরুর বেপারী এই কান্ড ঘটাবে,কেউ বুঝতেই পারেনি,তবে এটি আজ (শুক্রবার) ইফতারের পর মাহিনী বাজার রফিক মাস্টারের দোকানে মীমাংসা হবে বলে জানা গেছে।

 

Amader Nangalkot'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।  আমাদের নাঙ্গলকোট পত্রিকা তথ্য মন্ত্রনালয়ের তালিকাভক্তি নং- ১০৫।

পাঠকের মন্তব্য: