নাঙ্গলকোটে সাংবাদিকের বাসায় ডাকাতি; থানায় অভিযোগ! | আমাদের নাঙ্গলকোট
সর্বশেষ সংবাদ
◈ বঙ্গবন্ধুর মানবিক গুনাবলী ও ধর্মীয় চেনতা-মোহাম্মদ হেদায়েত উল্লাহ ◈ সুপ্রিম কোর্টের অবকাশকালীন সব ছুটি বাতিল! ◈ সংবিধান থেকে রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম বাদ দেয়া সেই লিগ্যাল নোটিশ প্রত্যাহার ◈ বিশ্ব পর্যটন দিবস ও আমাদের সম্ভাবনা ◈ মোল্লা নিয়ে আলোচনা -সমালোচনা- এ,কে,এম মনিরুল হক ◈ বাইয়ারা প্রবাসী কল্যাণ ইউনিট’র বাহারাইন শাখা কমিটি গঠন ◈ পাই যে কৃপার ভাগ – মোঃ জহিরুল ইসলাম। ◈ কুমিল্লায় শিশু ধর্ষণের অভিযোগে জুতা পেটা খাওয়া ছাত্রলীগ নেতাকে দল থেকে বহিষ্কার ◈ সামাজিক সংগঠন ”খাজুরিয়া সমাজ কল্যাণ সংস্থার” ১৫ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন ◈ দৌলখাঁড় উচ্চ বিদ্যালয়ের নতুন প্রধান শিক্ষক শাহ আলম মজুমদার ◈ শিক্ষকদের মূল্যায়ন কতক্ষণ করবে- জহিরুল ইসলাম ◈ শুধু ভুলে যাই- গাজী ফরহাদ
প্রচ্ছদ / নাঙ্গলকোট / বিস্তারিত

নাঙ্গলকোটে সাংবাদিকের বাসায় ডাকাতি; থানায় অভিযোগ!

15 August 2014, 5:45:00

মোঃ আলাউদ্দিন, কুমিল্লা ঃ কুমিল্লার নাঙ্গলকোটে এক সাংবাদিক ও মানবাধিকার কর্মীর বাসায় ডাকাতি হওয়ার ঘটনা ঘটেছে। থানায় অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, দৈনিক করতোয়া, আমাদের অধিকার ও সাপ্তাহিক লাকসাম পত্রিকার নাঙ্গলকোট প্রতিনিধি এবং এশিয়া ছিন্নমূল মানবাধিকার ফাউন্ডেশনের কুমিল্লা (দঃ) জেলার সভাপতি এ, এইচ,এম আবুল খায়ের প্রায় ৪ মাস পূর্বে পৌর সদরের উকিলপাড়া হাজী আলী আকবর সড়কের পাশে অবস্থিত ডাঃ ইসহাক ফারুকীর আবাসিক বাস ভবনের ২য় তলা ভাড়া নেয়। গত ২ আগষ্ট থেকে ৬ আগষ্ট পর্যন্ত সাংবাদিক আবুল খায়ের ঈদ উপল্েয মানবাধিকার কার্যক্রমে বিশেষ পোগ্রামে ৪ দিনের সফরে ব্রাহ্মনবাড়ীয়া ও সিলেটে যান। পোগ্রাম শেষে সাংবাদিক আবুল খায়ের এসে দেখেন তার বাসার দরজা খোলা এবং বাসায় থাকা তার ব্যবহৃত একটি ডেস্কটপ কম্পিউটার, একটি ল্যাপটপ, একটি মোবাইল সেট, ইন্টারনেট মটেম, একটি প্যানডাইপসহ কিছু টাকা চুরি হয়।


এ ব্যাপারে সাংবাদিক আবুল খায়ের জনান আমি সাংবাদিক পেশায় থাকার কারনে অনেক সময় সন্ত্রাস, দূর্নীতি ও অনিয়মের বিরুদ্ধ লেখালেখির কারনে কারো মনে ােভ ও প্রতিহিংসা জাগতে পারে। হয়তো এরই কারনে প্রতিহিংসা পরায়ন বশত ওদের কেউ আমাকে মারার উদ্দেশ্য বাসার দরজা ভেঙ্গে প্রবেশ করে। কিন্তু আমাকে না পেয়ে আসবাবপত্র তছনছ করে ও উল্লেখিত মালামাল গুলো চুরি করে নিয়ে যায়। ডাকাতরা আমার বাসায় থেকে  লাধিক টাকার মালামাল ডাকাতি করে নিয়ে যায়। ল্যাপটপ কম্পিউটারে আমার অনেক গুরত্বপূর্ন তথ্য ও ডুকুমেন্ট সংরতি ছিল। এতে আমি চরম ভাবে তিগ্রস্থ হয়েছি। ভাগ্য ভালো আমি বাসায় থাকলে ডাকাতরা হয়তো আমাকে জানে মেরে ফেলতো।


এ ব্যাপারে সাংবাদিক আবুল খায়ের বাদী হয়ে নাঙ্গলকোট থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছে। নাঙ্গলকোট থানার ওসি (তদন্ত) সালাহ উদ্দিন কে জিজ্ঞাসা করলে তিনি এ ব্যাপারে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করবে বলে জানিয়েছেন।

 

Amader Nangalkot'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।  আমাদের নাঙ্গলকোট পত্রিকা তথ্য মন্ত্রনালয়ের তালিকাভক্তি নং- ১০৫।

পাঠকের মন্তব্য: