সংসার ভাঙ্গন থেকে রক্ষা পেলনা ঋত্বিক ঘরটিও। | আমাদের নাঙ্গলকোট
সর্বশেষ সংবাদ
◈ বঙ্গবন্ধুর মানবিক গুনাবলী ও ধর্মীয় চেনতা-মোহাম্মদ হেদায়েত উল্লাহ ◈ সুপ্রিম কোর্টের অবকাশকালীন সব ছুটি বাতিল! ◈ সংবিধান থেকে রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম বাদ দেয়া সেই লিগ্যাল নোটিশ প্রত্যাহার ◈ বিশ্ব পর্যটন দিবস ও আমাদের সম্ভাবনা ◈ মোল্লা নিয়ে আলোচনা -সমালোচনা- এ,কে,এম মনিরুল হক ◈ বাইয়ারা প্রবাসী কল্যাণ ইউনিট’র বাহারাইন শাখা কমিটি গঠন ◈ পাই যে কৃপার ভাগ – মোঃ জহিরুল ইসলাম। ◈ কুমিল্লায় শিশু ধর্ষণের অভিযোগে জুতা পেটা খাওয়া ছাত্রলীগ নেতাকে দল থেকে বহিষ্কার ◈ সামাজিক সংগঠন ”খাজুরিয়া সমাজ কল্যাণ সংস্থার” ১৫ সদস্য বিশিষ্ট কমিটি গঠন ◈ দৌলখাঁড় উচ্চ বিদ্যালয়ের নতুন প্রধান শিক্ষক শাহ আলম মজুমদার ◈ শিক্ষকদের মূল্যায়ন কতক্ষণ করবে- জহিরুল ইসলাম ◈ শুধু ভুলে যাই- গাজী ফরহাদ

সংসার ভাঙ্গন থেকে রক্ষা পেলনা ঋত্বিক ঘরটিও।

5 May 2014, 9:27:54

riytik

বিনোদন ডেস্ক,

বিচ্ছেদের যন্ত্রনাটি কেমন তা বুঝতে যাচ্ছেন  ঋত্বিক ও সুজানের। যদিও গত ডিসেম্বর ২০১৩ ইং সালে বিচ্ছেদের বিষয়টি সরাসরি ঘোষণা করেছিলেন তারা দুজনেই। এরপর থেকে দু’জনেই আলাদা থাকছিলেন।

বিচ্ছেদের কথা প্রকাশ্যে ঘোষণা করার পর ঋত্বিক ফেসবুকে জানিয়েছিলেন, সুজানের সঙ্গে বিচ্ছেদের মধ্যে দিয়েই তিনি প্রেমকে সম্মান জানালেন।

তিনি আরো জানান, সুজানই তার জীবনের একমাত্র ভালবাসা হয়ে থাকবে। যদি তাকে ছাড়া সুজান ভালো থাকে, তাহলে তাতেই তিনি খুশি।

সুজান জানান, এটা সম্পূর্ণ তাদের দুজনের একান্ত ব্যক্তিগত সিদ্ধান্ত। তারা একে অপরের প্রতি সম্মান জানিয়েই নিজেদের রাস্তায় হেঁটে যাওয়াটাই পছন্দ করছেন। তবে বাবা-মা হিসেবে তারা দুজনেই নিজেদের দায়িত্ব পালন করবেন।

কিন্তু সবকিছুকেই মিথ্যা করে দিয়ে বান্দ্রার এক পারিবারিক আদালতে দুজনের মতে বিবাহ বিচ্ছেদ মামলা দাখিল করেছেন তারা। আগামী নভেম্বরে তাদের বিচ্ছেদ মামলার শুনানি হওয়ার কথা রয়েছে।

 

এদিকে পরস্পরকে ভীষণ ভালোবেসে ২০০০ সালের ২০ ডিসেম্বর বিয়ে করেছিলেন বলিউডের হার্টথ্রব ঋত্বিক এবং তার চাইল্ডহুড সুইটহার্ট সুজান রোশন। ঋত্বিক হিন্দু, সুজান মুসলিম। কিন্তু ভালোবাসার সামনে ধুয়ে মুছে গিয়েছিল ধর্মীয় বিধি নিষেধ। ১৩ বছরের সুখে শান্তিতে সংসারে সুখেই কেটেছেন তারা দুইজন।

Amader Nangalkot'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।  আমাদের নাঙ্গলকোট পত্রিকা তথ্য মন্ত্রনালয়ের তালিকাভক্তি নং- ১০৫।

পাঠকের মন্তব্য: