নাঙ্গলকোটে ভাই ভাতিজাদের হামলায় চাচা’সহ আহত-৪ | আমাদের নাঙ্গলকোট
সর্বশেষ সংবাদ
◈ বঙ্গবন্ধুর মানবিক গুনাবলী ও ধর্মীয় চেনতা-মোহাম্মদ হেদায়েত উল্লাহ ◈ সুপ্রিম কোর্টের অবকাশকালীন সব ছুটি বাতিল! ◈ সংবিধান থেকে রাষ্ট্রধর্ম ইসলাম বাদ দেয়া সেই লিগ্যাল নোটিশ প্রত্যাহার ◈ নাঙ্গলকোটের ছেলে ইমরান জাতীয় রচনা প্রতিযোগিতায় প্রথম ◈ বাইয়ারা প্রবাসী কল্যাণ ইউনিট এর উদ্যোগে ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত ◈ নাঙ্গলকোট প্রেসক্লাবের ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত ◈ নাঙ্গলকোটে ক্রিকেট টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা ও পুরস্কার বিতরণী ◈ মাধবপুর শালবন ক্লাবের উদ্যোগে বৃত্তি পরীক্ষার ফলাফল ঘোষণা ও ৭তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত ◈ নাঙ্গলকোটে তরুণ উদ্যোক্তা সম্মেলন অনুষ্ঠিত ◈ নাঙ্গলকোটে ভাষা শহীদদের স্মরণে ক্রিকেট টুর্নামেন্ট উদ্বোধন ◈ নাঙ্গলকোটে বাড়ীঘরে হামলা ভাংচুর, আহত-৩ ◈ ঢাকাস্থ ঢালুয়া ইউনিয়ন সমিতির নির্বাচন সম্পন্ন সভাপতি সাজু ও সাধারন সম্পাদক জাহাঙ্গীর ◈ নাঙ্গলকোটের সোন্দাইল ডিজিটাল পোস্ট অফিস কম্পিউটার প্রশিক্ষণার্থীদের মাঝে সনদ বিতরণ

প্রতিনিয়ত হামলার ভয়ে থাকতে হয় আমাদের...!

নাঙ্গলকোটে ভাই ভাতিজাদের হামলায় চাচা’সহ আহত-৪

30 May 2021, 3:26:10

বাপ্পি মজুমদার ইউনুস ॥
কুমিল্লার নাঙ্গলকোটের দৌলখাঁড় ইউনিয়নের কেকৈয়া গ্রামে সম্পত্তি নিয়ে বিরোধের জেরে সন্ত্রাসী হামলায় একই পরিবারের ৪ জন গুরুতর আহত হয়েছে। শনিবার সন্ধ্যায় এ হামলার ঘটনা ঘটে। আহতরা হলেন কেকৈয়া গ্রামের বাহার উদ্দিন (৫০), তার স্ত্রী হাজেরা আক্তার পান্না (৪৫), ছেলে পারভেজ (২৬) ও মেয়ে তারমিন সুলতানা বৃষ্টি (১৬)। আহতদের নাঙ্গলকোট উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, উপজেলার কেকৈয়া গ্রামের মৃত তোফাজ্জল হোসেনের ছেলে বাহার উদ্দিনের বাড়ীর চার পাশে তার ভাই সাবেক কৃষি ব্যাংক কর্মকর্তা আবুল হোসেন ঘর ও সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করে বন্দি করে পেলে এবং পৈত্রিক সম্পত্তিতে বাহার উদ্দিনকে কম মূল্যের জমি গুলোতে ভাগ দিয়ে মূল্যবান সম্পত্তি গুলো তার ভাই দখল করে। এছাড়াও বাহার উদ্দিনকে দখলীয় সম্পত্তিতে আবুল হোসেন জোর পূর্বক ঘর নির্মাণ করে পেলে। সবশেষে গত শনিবার বাহার উদ্দিন তার মালিকানাধীন জমি থেকে মাটি কাটতে গেলে আবুল হোসেন তার ২ছেলে ও ভাতিজাকে নিয়ে বাধা দেয়। এ নিয়ে বাহার উদ্দিন ও তার পরিবারের সদস্যরা প্রতিবাদ করলে আবুল হোসেনের নির্দেশে তার ছেলে রুবেল ও পলাশ, অপর ভাই জালাল আহম্মেদের ছেলে জাহিদ বিন জনি তার উপর ধারালো ও দেশীয় অস্ত্রসস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে।

আহত বাহার উদ্দিন বলেন, আমার ভাই আবুল হোসেন বিভিন্ন ভাবে আমার পরিবারের উপর নির্যাতন চালিয়ে আসছে এবং আমার জমি দখল করে ঘর নির্মাণ করেছে। আমি কোন বিষয়ে প্রতিবাদ করলেই তারা আমাদের উপর হামলা চালায়। আমি এ ব্যাপারে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান ভূক্তভোগীরা।
হামলার ঘটনায় অভিযুক্ত রুবেল বলেন, বাহার উদ্দিনের কোন সম্পত্তি নেই। হাসপাতাল যাওয়ার সময় আমি বাড়ীতে থাকলে তারা হাসপাতালেও যেতে পারতো না, তাদেরকে বেঁধে রাখতাম।

Amader Nangalkot'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।  আমাদের নাঙ্গলকোট পত্রিকা তথ্য মন্ত্রনালয়ের তালিকাভক্তি নং- ১০৫।

পাঠকের মন্তব্য:

x